Category Archives: শিক্ষা

সিরাজগঞ্জে বিএফএফ-সমকাল বিতর্ক উৎসব অনুষ্ঠিত

ডেস্ক রিপোর্ট: সিরাজগঞ্জে বিএফএফ-সমকাল জাতীয় বিতর্ক উৎসব-২০১৯ অনুষ্ঠিত হয়েছে। জেলার দেড়শ’ বছরের প্রাচীন ও ঐতিহ্যবাহী সিরাজগঞ্জ পৌরসভার ডিজিটাল হলরুমে শনিবার (২৩ মার্চ) দিনব্যাপী প্রানবন্ত ও অনাড়ম্বরভাবে এ উৎসব অনুষ্ঠিত হয়।
উৎসবে সিরাজগঞ্জ বি. এল.সরকারী উচ্চ বিদ্যালয়ের বিতার্কিক দল চাম্পিয়ন এবং প্রধান বক্তা হন এ দলের দলনেতা শাফিন জুবায়ের। উল্লাপাড়ার মোমেন আলী বিজ্ঞান স্কুলের বিতার্কিক দল রানার আপ হয়। উৎসবে জেলার ৮টি মাধ্যমিক বিদ্যালয় অংগ্রহন করে।
চাম্পিয়ন ও রানারআপ বিজয়ী ওই দু’টি বিদ্যালয় ছাড়াও সালেহা ইসহাক সরকারী বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়, সবুজ কানন স্কুল এন্ড কলেজ, সিরাজগঞ্জ কালেক্টরেট স্কুল এন্ড কলেজ, পুলিশ লাইন্স স্কুল এন্ড কলেজ, সিরাজগঞ্জ বিদ্যুত উন্নয়ন বোর্ড (পিডিবি) মাধ্যমিক বিদ্যালয় এবং সিরাজগঞ্জ কওমী জুট মিলস্ হাই স্কুলের বিতার্কিক দল অংশ গ্রহন করে।
সিরাজগঞ্জ বি. এল.সরকারি উচ্চ বিদ্যালয়ের বিতার্কিক দলে ছিলেন মোঃ আতেফ আসাদ, রিফাত হাসান ও শাফিন জুবায়ের এবং উল্লাপাড়ার মোমেন আলী বিজ্ঞান স্কুলের বিতার্কিক দলে ছিলেন আফিয়া তানজুম, জেরিন ইকবাল ও এস.আর.মীম (দলনেতা)।
বিতর্ক উৎসবে মডারেটরের দায়িত্ব পালন করেন, জেলা শিক্ষা অফিসার মোঃ শফী উল্লাহ। বিচারক মন্ডলীর দায়িত্বে ছিলেন সরকারী বেগম নুরুন্নাহার তর্কবাগিশ অনার্স কলেজের পদার্থ বিজ্ঞান বিভাগের সহকারী অধ্যাপক মোঃ আতাউর রহমান খান বরাত, সিরাজগঞ্জ সরকারী বিশ্ববিদ্যালয়ের কলেজের প্রভাষক ও জাতীয় বিতার্কিক মোঃ সোলেয়মান, সুহৃদ উপদেষ্টা অ্যাড. নাসিম আব্দুল হাকিম (এপিপি), জেলা শিক্ষা অফিসার পরিদর্শক রবিউল ইসলাম, সমকাল উল্লাপাড়া প্রতিনিধি কল্যাণ ভৌমিক।
অনুষ্ঠানটির সঞ্চালনা ও উপস্থাপনার দায়িত্বে ছিলেন সুহৃদ উপদেষ্টা সাংবাদিক সুলতানা ইয়াসমিন মিলি। সমন্বয়কারীর দায়িত্বে ছিলেন, সমকাল জেলা প্রতিনিধি আমিনুল ইসলাম খান রানা। সমকাল তাড়াশ প্রতিনিধি আতিকুল ইসলাম বুলবুল, রায়গঞ্জ প্রতিনিধি তাপস কুমার ঘোষ, শাহজাদপুর প্রতিনিধি কোরবান আলী লাবলু, জেলা শিক্ষা অফিসের ডিষ্ট্রিক্ট ট্রেনিং কো-অর্ডিনেটর শাহ খোন্দঃ আব্দুর বারি, সহকারী প্রোগ্রামার জহির উদ্দিন মোহাম্মদ বাবর, হিসাব রক্ষক মোঃ সাইদুল ইসলাম সেখ, অফিস সহকারী মোঃ বজলুর রশিদ ও ডাটা এন্ট্রি অপারেটর রেজাউর রহমান অনুষ্ঠানটির অন্যান্য দায়িত্বে থেকে প্রানবন্ত করেন।vv
অনুষ্ঠান শেষে সবুজ কানন স্কুল এন্ড কলেজের শিক্ষক নূর আলম খান হীরা ও কওমী জুট মিলস্ হাই স্কুলের শিক্ষক মোঃ হাফিজুল ইসলাম ধন্যবাদজ্ঞাপন করেন।
সিরাজগঞ্জ বার্তা.কম/২৪ মার্চ’২০১৯

প্রত্যাশিত সিরাজগঞ্জ’র এবার শাহজাদপুরে কম্বল বিতরণ

নিউজ ডেস্ক: Kombol_Shahzadpur (1)

অরাজনৈতিক সেবামূলক সংগঠন ‘প্রত্যাশিত সিরাজগঞ্জ’ এর উদ্যোগে এবার শাহজাদপুরে দরিদ্র মানুষের মাঝে কম্বল বিতরণ করা হয়েছে। গত শুক্রবার (১৮ জানুয়ারি’২০১৯) সকালে শাহজাদপুর সরকারি পাইলট উচ্চ বিদ্যালয়ে আয়োজিত অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ছিলেন শাহজাদপুর প্রেস ক্লাবের সভাপতি বিমল কুমার কুণ্ডু।

সংগঠনটির সভাপতি মেহেদী হাসান হেলালের সভাপতিত্বে এবং যুগ্ন সাধারণ সম্পাদক তাহছিন নূরী খোকনের সঞ্চালনায়  অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন শাহজাদপুর প্রেস ক্লাবের সাধারণ সম্পাদক শফিকুজ্জামান শফি, মাওলানা সাইফুদ্দিন এহিয়া কলেজের পরিসংখ্যান বিভাগের প্রভাষক জাহিদুল আলম, সাংবাদিক আল আমিন হোসেন, সাংবাদিক রাজিব রাসেল, সাংবাদিক ফরিদ আহমেদ চঞ্চল প্রমুখ। স্বাগত বক্তব্য রাখেন সংগঠনের সাধারণ সম্পাদক এস.এম সাইফুল ইসলাম।

অনুষ্ঠানে উপজেলার বিভিন্ন এলাকার প্রায় ১০০ জন গরীব মানুষের মাঝে শীত কম্বল বিতরণ করা হয়।

এর আগে গত ১১ই জানুয়ারি উল্লাপাড়ায় আরেকটি অনুষ্ঠানের মাধ্যমে শীতবস্ত্র বিতরণ করা হয়।একইভাবে জেলার আরও কয়েকটি উপজেলায় কিছু সংখ্যক কম্বল বিতরণ করা হয়। রায়গঞ্জ উপজেলায় সংগঠনের পক্ষে কম্বল বিতরণ করেন মো. নূর এ আলম সিদ্দিক ও আব্দুল মতিন নয়ন।

সিরাজগঞ্জ বার্তা.কম/২০ জানুয়ারি’২০১৯।

 

 

উল্লাপাড়ায় ট্যালেন্টেপুলে বৃত্তি পেয়েছে রুপম

উপজেলা করেসপন্ডেন্ট

উল্লাপাড়া(সিরাজগঞ্জ): কে. এম সাইফুল্লাহ রুপম ২০১৬ সালের প্রাথমিক শিক্ষা সমাপনী পরীক্ষায় জিপিএ-৫ পাওয়ার পাশাপাশি ট্যালেন্টপুলে বৃত্তি পেয়েছে। সম্প্রতি প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রণালয় এ ফল প্রকাশ করে। রুপমসিরাজগঞ্জের সরকারি বিএল উচ্চ বিদ্যালয়ের ৬ষ্ঠ শ্রেণিতে অধ্যয়ণরত।

সিরাজগঞ্জের দুর্গত এলাকা থেকে প্রাথমিকে জিপিএ-৫ আবার শহরের ১ম সারির স্কুলে চান্স পাওয়ায় খুব খুশী রুপমের শিক্ষক বাবা-মা। উল্লাপাড়ার এলংজানি আটিয়ারপাড়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় থেকে পিএসসি পরীক্ষায় অংশ নেয় রুপম। রুপমের মা কাজী সালমা রহমান এ স্কুলের সহকারী শিক্ষিকা।

বাবা কে এম আব্দুল আলীম জেলাম তাড়াশ উপজেলার নওগাঁ জিন্দানি ডিগ্রি কলেজের সমাজকল্যাণের সহকারী অধ্যাপক।বাবা-মা দুজনই তার ছেলের উজ্বল ভবিষ্যতের জন্য দেশবাসীর কাছে দোয়া চেয়েছেন।ভবিষ্যতে ডাক্তার হওয়ার ইচ্ছে রুপমের। 22রুপমের বড় বোন নাইমা চলতি বছরের এসএসসি পরীক্ষায় অংশ নিয়েছে। ফল প্রকাশের অপেক্ষায়।

এদিকে গত ১৫ এপ্রিল এলংজানি আটিয়ারপাড়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ রৃপমসহ বৃত্তিপ্রাপ্তদের সংবর্ধনা দেয়। এতে বিদ্যালয়ের ব্যবস্থাপনা কমিটির নেতৃবৃন্দসহ এলাকার গণ্যমান্য ব্যক্তিরা অংশ নেয়।

সিরাজগঞ্জ বার্তা/১৬ এপ্রিল’২০১৭

সিরাজগঞ্জের রাজিবপুর মাদ্রাসায় জঙ্গিবাদ বিরোধী মানববন্ধন

নূর-এ-আলম সিদ্দিক০০০
সিরাজগঞ্জ: সরকারি-বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয় ও মাদ্রাসাসমুহের জঙ্গিবাদ বিরোধী কর্মসূচির অংশ হিসেবে সিরাজগঞ্জের সদর উপজেলার রাজিবপুর দাখিল মাদ্রাসায় কাঁধে কাঁধ মিলিয়ে এবং হাতে হাত রেখে মানববন্ধন করেছে মাদ্রাসাটির শিক্ষক-কর্মচারী-ছাত্র-ছাত্রী ও অভিভাবকেরা।

সোমবার (১ আগস্ট’২০১৬) বেলা ১১টা থেকে দুপুর ১২টা পর্যন্ত মাদ্রাসা সংলগ্ন সড়কে এ কর্মসূচি পালিত হয়।
এতে অংশ নেন মাদ্রাসার সুপার মাওলানা আবু লাইস, সহ সুপার কাজী ফাতেমা তুজ জোহরা, অভিভাবক সদস্য সাবেক ইউপি সদস্য মো. রঞ্জু সরকার, শরিফুল ইসলাম, কামাল হোসেনসহ শিক্ষক-অভিভাবক ও ছাত্র-ছাত্রীরা।

ঢাকা থেকে এ কর্মসূচির তদারক করেন মাদ্রাসার প্রতিষ্ঠাতা সমাজসেবী মো. আব্দুল খালেক।

মানববন্ধন চলাকালে দেওয়া বক্তৃতায় সুপার মাওলানা আবু লাইস বলেন, সারাদেশে পালিত কর্মসূচির অংশ হিসেবে আমাদের এই মানববন্ধন। কুচক্রিদের দেখানো পথ থেকে যুব সমাজকে রক্ষা করতে হবে। শিক্ষকদের পাশাপাশি অভিভাবকদেরও সজাগ হওয়ার আহ্বান জানাই।

সিরাজগঞ্জ বার্তা/১ আগস্ট’২০১৬/এনএস

প্রাইভেট মেডিকেল টেকনোলজি অ্যান্ড ম্যাটস ওনার্স অ্যাসোসিয়েশনের সভা

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট

ঢাকা: বাংলাদেশ প্রাইভেট মেডিকেল টেকনোলজি অ্যান্ড ম্যাটস ওনার্স অ্যাসোসিয়েশনের সাধারণ সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে।

গতকাল মঙ্গলবার(১৪ জুন’২০১৬) সাইক প্রফেশনাল ট্রেনিং সেন্টার মিলনায়তনে এ সভা অনুষ্ঠিত হয়।

সভায় ২০১৬-২০১৭ শিক্ষাবর্ষে মেডিকেল টেকনোলজি ও ম্যাটস কোর্সে ভর্তির ক্ষেত্রে আগের নিয়ম অনুসরণ করার দা্বি জানানো হয়।

সম্প্রতি স্বাস্থ অধিদপ্তরে অনুষ্ঠিত ভর্তি সংক্রান্ত মিটিংয়ে এমবিবিএস ভর্তি পরীক্ষার মতো করে মেডিকেল টেকনোলজি ও ম্যাটস কোর্সে ভর্তি পরীক্ষা নেওয়ার সিদ্ধান্ত বেসরকারি মেডিকেল টেকনোলজি ও ম্যাটস প্রতিষ্ঠানকে ক্ষতিগ্রস্ত করবে বলেও উদ্বেগ প্রকাশ করা হয়।

সংগঠনটির সভাপতি ও সাইক ইনস্টিটিউট অব মেডিকেল টেকনোলজির চেয়ারম্যান আবু হাসনাত মো: ইয়াহিয়ার সভাপতিত্বে সভায় স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের মহাপরিচালক, স্বাস্থ্যমন্ত্রীকে সিদ্ধান্ত পরিবর্তনের জন্য স্মারকলিপি দেওয়াসহ বেশ কিছু গুরুত্বপূর্ণ সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়। অন্যদের মধ্যে বক্তব্য রাখেন সংগঠনটির মহাসচিব মো. শাহাদত হোসেন, কোষাধ্যক্ষ দেওয়ান কামারুজ্জামান প্রমুখ।

অংশ নেন রাষ্ট্রীয় চিকিৎসা অনুষদ অধিভুক্ত সারাদেশের প্রাইভেট মেডিকেল টেকনোলজি ও ম্যাটস ইনস্টিটিউটের উদ্যোক্তাবৃন্দ।DSC_3850

সিরাজগঞ্জ বার্তা/এনএস/১৫ জুন’২০১৬

সিরাজগঞ্জে স্কুলছাত্রীর কানের পর্দা ফাটালেন শিক্ষক, শাস্তির সুপারিশ

গগগমাওলানা মো. আবু লাইস, উপজেলা করেসপন্ডেন্ট

সিরাজগঞ্জ: সিরাজগঞ্জে টিফিনের সময় ছুটি চাওয়ায় ক্ষিপ্ত হয়ে ইমা খাতুন (১৩)নামের এক ছাত্রীকে চড় মেরে কানের পর্দা ফাটিয়ে দিয়েছেন প্রধান শিক্ষক।

ইমা সিরাজগঞ্জ জেলার বেলকুচি উপজেলার তামাই বহুমুখী বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ের ৮ম শ্রেণির ছাত্রী। গত সোমবার(২৩ এপ্রিল’২০১৬) বিকেলে প্রধান শিক্ষক সাইদুল ইসলাম এ কাণ্ড ঘটান।

উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা কর্মকর্তা খোরশেদ আলম সিরাজগঞ্জ বার্তাকে বলেন, এ ঘটনায় ছাত্রীর বাবা ইসমাইল হোসেন বেলকুচি উপজেলা নির্বাহী অফিসারের (ইউএনও) কাছে অভিযোগ করেছেন। তারই পরিপ্রেক্ষিতে ঘটনা তদন্তে উপজেলা সহকারী কমিশনার(ভূমি) এর নেতৃত্বে ৪ সদস্যের কমিটি গঠন করা হয়। কমিটি ঘটনার সত্যতা পেয়ে রিপোর্টে প্রধানশিক্ষকের শাস্তির সুপারিশ করেছে।

ছাত্রীটির বাবা জানান, টিফিন পর ইমার হঠাৎ পেটে ব্যথা শুরু হলে বাড়ি আসার জন্য প্রধান শিক্ষকের কাছে ছুটি চায় ইমা। প্রধান শিক্ষক সাইদুল ইসলাম ছুটি না দিয়ে বাম হাত দিয়ে ইমার কানের ওপর সজোরে চড় মারেন। এতে তার কানের পর্দা ফেটে রক্তপাত শুরু হয়।খবর পেয়ে তিনি মেয়েকে বেলকুচি উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে যান।

এ বিষয়ে অভিযুক্ত প্রধান শিক্ষক সাইদুল ইসলাম তার অপরাধের কথা স্বীকার করে বলেন, ওই সময় মাথা ঠিক ছিলো না। তাই এমন কাজ করে ফেলেছি।
এদিকে তদন্ত কমিটির রিপোর্ট পেয়েছি। এখন পরবর্তী পদক্ষেপ নেওয়া হবে বলে জানিয়েছেন বেলকুচির ইউএনও সাইফুল হাসান।

সিরাজগঞ্জ বার্তা/এনএস/২৮ এপ্রিল’২০১৬

চন্ডিদাসগাতীতে স্পিড ব্রেকার নির্মাণের দাবিতে মানববন্ধন- বিক্ষোভ

মাওলানা আবু লাইস, ভ্রাম্যমাণ প্রতিনিধি

সিরাজগঞ্জ সদর উপজেলার সিরাজগঞ্জ-নলকা আঞ্চলিক সড়কের চন্ডিদাসগাতিতে নিরাপদ সড়ক ও স্পিড ব্রেকার নির্মাণের দাবিতে মানববন্ধন ও বিক্ষোভ সমাবেশ করেছে শিক্ষক ও শিক্ষার্থীরা।

সোমবার সকালে আয়োজিত এই মানববন্ধন ও বিক্ষোভ সমাবেশে সদর উপজেলার চন্ডিদাসগাতী সৈয়দ আকবর আলী উচ্চ বিদ্যালয়, চন্ডিদাসগাতী সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়, আবেদা মাহমুদ হাফিজিয়া মাদ্রাসা, গণ পাঠাগার, আব্বাসিয়া দাখিল মাদ্রাসা, বহুতী হাফিজিয়া মাদ্রাসা, গণস্বাস্থ্য বিদ্যালয়, মর্নিং স্টার কিন্ডার গার্টেন স্কুল ও রিভারভিউ আইডিয়াল কলেজের প্রায় ১ হাজার ছাত্র-ছাত্রী, তাদের অভিভাবক, শিক্ষকমণ্ডলী ও এলাকাবাসী অংশ নেয়।

মানববন্ধন কর্মূসূচি চলাকালে চন্ডিদাসগাতী বাজার, কবরস্থান ও বহুতি বাজারে তিনটি স্প্রিড ব্রেকার নির্মাণের দাবি জানিয়ে বক্তব্য দেন, শিয়ালকোল ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান শাহজামাল আকন্দ, সৈয়দ আকবর আলী উচ্চ বিদ্যালয় ম্যানেজিং কমিটির সভাপতি মোজাম্মেল হক সরকার, সদস্য মতিউর রহমান আকন্দ, হযরত আলী ও প্রধান শিক্ষক রহমতুল্লাহ খান।

সম্প্রতি সদর উপজেলার চন্ডিদাসগাতী কবরস্থানের সামনে পৃথক দুটি সড়ক দুর্ঘটনায় প্রাণ হারান সৈয়দ আকবর আলী উচ্চ বিদ্যালয় ও চন্ডিদাসগাতী সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের তিন ছাত্র।এ সময় দুর্ঘটনাস্থলে গিয়ে স্থানীয়দের দাবির মুখে সিরাজগঞ্জ সদর উপজেলা নির্বাহী অফিসার (ইউএনও) SIRAJGONJব্রেনজন চাম্বু গং দুর্ঘটনাস্থলে খুব কম সময়ের মধ্যে স্প্রিড ব্রেকার নির্মাণের ঘোষণা দেন। কিন্তু এখনো স্প্রিড নির্মাণ না হওয়ার প্রতিবাদে ও দ্রুত নির্মাণের দাবিতে এই কর্ম সূচি পালন করা হয়।

সিরাজগঞ্জ বার্তা/এপ্রিল ১১, ২০১৬

শাহজাদপুরে রবীন্দ্র বিশ্ববিদ্যালয়ের দাবিতে বিক্ষোভ মিছিল ও মানববন্ধন

উপজেলা প্রতিনিধি, শাহজাদপুর:

সিরাজগঞ্জের শাহজাদপুরে পূর্ণাঙ্গ রবীন্দ্র বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিষ্ঠার দাবিতে ধারাবাহিক আন্দোলন কর্মসূচির অংশ হিসাবে শনিবারও(৭ মে’ ২০১১) উপজেলা সদরে বিক্ষোভ মিছিল ও বগুড়া-নগরবাড়ী মহাসড়কে মানববন্ধন কর্মসূচি পালন করা হয়েছে।
শাহজাদপুরের সর্বস্তরের জনগণের পক্ষ থেকে এ কর্মসূচি পালন করা হয়। স্থানীয় বিসিক বাসস্ট্যান্ড সংলগ্ন বগুড়া-নগরবাড়ী মহাসড়কে সকাল ১১ টা থেকে দুপুর ১২টা পর্যন্ত আয়োজিত এ মানববন্ধন কর্মসূচি চলাকালে সংক্ষিপ্ত বক্তব্য রাখেন, রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের সাবেক ভিসি ড. আব্দুল খালেক, সাবেক শিল্প উপমন্ত্রী ও উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান হাসিবুর রহমান স্বপন, ভাইস চেয়ারম্যান  গোলাম মওলা আজম, প্রফেসর নাছিম উদ্দিন মালিথা, অধ্যক্ষ সিরাজুল হক, অধ্যক্ষ শহিদুল ইসলাম শাহীন, সাবেক পৌর মেয়র হালিমূল হক মিরু প্রমুখ।
এসময় বক্তারা বলেন, কবিগুরুর স্মৃতি বিজড়িত এ শাহজাদপুরে পূর্ণাঙ্গ রবীন্দ্র বিশ্ববিদ্যালয় স্থাপন এলাকাবাসীর প্রাণের দাবি। ভৌগোলিক অবস্থান, উন্নত যোগাযোগ ব্যবস্থা, বিশ্ববিদ্যালয় স্থাপনের জন্য পর্যাপ্ত জমি পাওয়ার নিশ্চয়তাসহ সকল সুবিধা নিশ্চিত করা যাবে। শিলাইদহে রবীন্দ্র বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিষ্ঠার কোনো যৌক্তিকতা নেই। একটি মহল ষড়যন্ত্রমূলকভাবে শাহজাদপুরে রবীন্দ্র বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিষ্ঠায় প্রতিবন্ধকতা সৃষ্টি করছে।
মানববন্ধন থেকে অবিলম্বে শাহজাদপুরে পূর্ণাঙ্গ রবীন্দ্র বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিষ্ঠার উদ্যোগ নেওয়া না হলে মহাসড়ক অবরোধ, গণঅনশনসহ বৃহত্তর আন্দোলনের কর্মসূচি ঘোষণার হুমকি দেওয়া হয়।

গত শুক্রবারও (৬মে’২০১১) শাহজাদপুর পৌর সদরের প্রবেশপথের প্রধান সড়কে রবীন্দ্র বিশ্ববিদ্যালয় স্থাপনের দাবিতে সকাল সাড়ে ১০টা থেকে সাড়ে ১১টা পর্যন্ত স্থানীয় রংধনু কিন্ডার গার্টেন অ্যান্ড মডেল হাইস্কুলের উদ্যোগে মানববন্ধন রচনা করা হয়।
এতে উপজেলা সদরের বিভিন্ন শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের ছাত্রছাত্রী, শিক্ষক, আইনজীবী, শিক্ষাবিদ, সাংবাদিকসহ নানা শ্রেণী-পেশার শত শত মানুষ অংশ নেয়।
মানববন্ধন চলাকালে শাহজাদপুরে রবীন্দ্র বিশ্ববিদ্যালয়ের ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপনের দাবি জানিয়ে বক্তব্য রাখেন, প্রফেসর নাছিম উদ্দিন মালিথা, আইনজীবী আনোয়ার হোসেন, অধ্যক্ষ শহিদুল ইসলাম শাহীন, শিক্ষক শ্যামল দত্ত, মঈন উদ্দিন, সাংবাদিক বিমল কুন্ডু, অ্যাডভোকেট কবীর আজমল বিপুল প্রমুখ।
এর আগে একই দাবিতে সিরাজগঞ্জ জেলা আইনজীবী সমিতিসহ কয়েকটি রাজনৈতিক, সাংস্কৃতিক ও সামাজিক সংগঠন মানববন্ধন, মতবিনিময় সভা, স্মারকলিপি প্রদান ও গণস্বাক্ষর কর্মসূচি পালন করেছে।

সিরাজগঞ্জ বার্তা/এমএনএস/ মে ০৭’ ২০১১ইং

অর্ধযুগ ধরে রাজিবপুর দাখিল মাদ্রাসাটি এমপিও বঞ্চিত

সিরাজগঞ্জ জেলা সদরের রাজিবপুর দাখিল মাদ্রাসা(ইআইআইএন নং-১২৮৪৫১) অর্ধযুগ ধরে এমপিও বঞ্চিত। ২০০০ সালে প্রতিষ্ঠিত এ মাদ্রাসাটির বর্তমানে শিক্ষার্থীর সংখ্যা প্রায় ৭০০। শিক্ষক-শিক্ষিকারা নিজেরা বেতন না পেয়ে অনেক দু:খ-দুর্দশার মধ্যে দিনাতিপাত করলেও ধরে রেখেছেন পড়াশোনার মান। বিগত বছরের দাখিল, এবতেদায়ী ও জেডেসি পরীক্ষার ফলাফল খুবই ভালো। চারদলীয় জোট সরকারের শাসনামলসহ বর্তমান সরকারের আমলেও এমপিওভুক্তির জন্য আবেদন করেও বঞ্চিত হয়েছে মাদ্রাসাটি।

বর্তমান মহাজোট সরকারের সময় দীর্ঘদিন পরে এমপিওভুক্তির কার্যক্রম শুরু হলে প্রতিষ্ঠানটি এমপিওভূক্ত করতে স্থানীয় সাংসদ তানভীর শাকিল জয় শিক্ষা মন্ত্রণালয় বরাবর আধা-সরকারি পত্র(ডিও) দেন। এ বিষয়ে জোর সুপারিশও করেন পরিকল্পনামন্ত্রী এয়ারভাইস মার্শাল(অব.) একে খন্দকার এমপি।

স্থানীয় সাংসদ ও পরিকল্পনামন্ত্রীর সুপারিশ এবং এমপিওভুক্তির নীতিমালা শতভাগ পুরণ করায় বর্তমান সরকারের দেওয়া শিক্ষামন্ত্রীর করা এমপিও’র প্রথম তালিকায় (৬মে’ ২০১০ ইং তারিখে শা-১৩/এমপিও/১২/২০০৯/১৮৪) মাদ্রাসাটি স্থানও পায়। খবরটি মাদ্রসার শিক্ষক-কর্মচারী, ছাত্র-ছাত্রীদেরসহ এলাকাবাসীর মধ্যে এনে দেয় আনন্দ-উচ্ছাস। নির্দেশনা মোতাবেক শিক্ষক-কর্মচারীরা জেলা শিক্ষা অফিসের প্রয়োজনীয় কার্যাদিসহ ব্যাংকে হিসাবও খোলেন।

কিন্তু কয়েকদিনের ব্যবধানে প্রথম তালিকা বাতিল করে প্রধানমন্ত্রীর শিক্ষা উপদেষ্টার করা দ্বিতীয় তালিকায় অজ্ঞাত কারণে মাদ্রাসাটিকে বাদ দেওয়া হয়। দীর্ঘদিন পরে এমপিও পেয়ে খুশির জোয়ারে ভাসতে থাকা শিক্ষক শিক্ষার্থীরা চলে যান হতাশার দুয়ারে।

মাদ্রাসা সুপার মাওলানা আবু লাইছ বলেন, শিক্ষক-শিক্ষিকারা একেবারে শুরু থেকে শিক্ষার্থীদেরকে নিবিড় ভাবে পড়াশোনা করাচ্ছেন। যার ফলশ্রতিতে সব পরীক্ষার ফলাফল জেলার মধ্যে প্রথম দিকেই। এবারের দাখিল পরীক্ষায় আমাদের ছেলেরা বরাবরের মতোই ভালো করবে। সরকার এমপিও দেওয়ার জন্য যে নীতিমালা তৈরি করেছে, তার সব কয়টি শর্তই পূরণ করে আমাদের মাদ্রাসা। সবারই প্রত্যাশা, এবার মাদ্রাসাটি এমপিওভুক্ত হবে।

বর্তমান শিক্ষার্থীর সংখ্যা অনেক বেশি উল্লেখ করে এমপিওভূক্তির পাশাপাশি একাডেমিক ভবন দরকারও বলে তিনি উল্লেখ করেন।

স্থানীয় সরকারদলীয় সাংসদ তানভীর শাকিল জয় প্রতিষ্ঠানটি এমপিওভুক্তির জন্য শিক্ষামন্ত্রী বরাবর ডিও লেটার দিয়েছেন বলে জানিয়েছেন।

ম্রাদাসাটির সহ সুপার কাজী ফাতেমা তুজ জোহরা জানান, দীর্ঘদিন ধরে প্রতিষ্ঠানটির সঙ্গে সবাই জড়িত। তাই বেতন না পেয়েও নানা অভাব অনটনের মধ্যেও সবাই নিয়মিত ক্লাস নেন। ছাত্র-ছাত্রীদেরকে বুঝতেও দেন না তাদের ভেতরে জমে থাকা বেদনা। এমপিওভুক্তি হলে শিক্ষকেরা আরও বেশি মনোযোগী হবেন। প্রতিষ্ঠানটি হয়ে উঠবে জেলার মধ্যে অন্যতম সেরা প্রতিষ্ঠান।

মাদ্রাসাটির প্রতিষ্ঠাতা সমাজসেবক এম এ খালেক বলেন, এলাকায় মাদ্রাসা নেই সেই চিন্তা থেকেই প্রতিষ্ঠানটির জন্ম। এটি নিয়ে এলাকাবাসীর অনেক আগ্রহ। আধুনিক শিক্ষা পাবে এম ভাবনায় তারা তাদের ছেলে মেয়েদেরকে পাঠাচ্ছেন। প্রথম থেকেই পাকা ঘর, খেলার মাঠসহ এক  মনোরম পরিবেশ পেয়ে শিক্ষার্থীরা মুগ্ধ। বর্তমান সরকার সব কিছু বিবেচনা করে প্রতিষ্ঠানটি এমপিওভুক্ত করবে বলে আমার বিশ্বাস।